1. admin@kholanewsbd24.com : admin :
রবিবার, ০৪ ডিসেম্বর ২০২২, ১১:১৮ পূর্বাহ্ন
রবিবার, ০৪ ডিসেম্বর ২০২২, ১১:১৮ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
প্রশাসনকে বৃদ্ধাঙ্গুল দেখিয়ে আলীকদম এবং নাইক্ষ্যংছড়ি পাহাড়ি সীমান্তে দিয়ে এসে প্রতিদিন দেশের বিভিন্ন প্রান্তে যাচ্ছে শত শত অবৈধ গরু মহিষ ইবিতে আন্তঃবিশ্ববিদ্যালয় হ্যান্ডবল ও ভলিবল প্রতিযোগিতা শুরু লালমনিরহাটে ইউনাইটেড গোল্ডেন সিটিজেনস ফাউন্ডেশন ক্রিকেট দলের অনুশীলন ক্যাম্পের সমাপনী অনুষ্ঠান নেত্রকোনার কলমাকান্দায় রোটা ভাইরাসের সংক্রমণ সভাপতি ইকবাল হোসেন জুয়েল সাধারণ সম্পাদক আবু কাউসার চৌধুরী রন্টি তুরাগতীরে অনুষ্ঠিত হচ্ছে জোড় ইজতেমার আনুষ্ঠানিক কার্যক্রম দিনাজপুরে আদিবাসী ও দলিত সম্প্রদায়ের জীবন মান উন্নয়নে গণশুনানি অনুষ্ঠিত ময়মনসিংহ জেলা ও মহানগর আওয়ামীলীগের সভাপতি, সাধারণ সম্পাদক হলেন যারা জমি নিয়ে বিরোধঃ বড় ভাইয়ের জমির ৬ শতাধিক গাছ উপড়ে ফেললো ছোট ভাই! মোটরসাইকেলের ধাক্কায় শ্রমিক নিহত

মাদকের আখড়া বেলকুচির ধুকুরিয়াবেড়া ও দৌলতপুর ইউনিয়ন

প্রশাসন
  • সময় : মঙ্গলবার, ২২ নভেম্বর, ২০২২
  • ৩৫ বার পঠিত

আব্দুর রাজ্জাক বাবু,বেলকুচি সিরাজগন্জ:
হাত বাড়ালেই মেলে নানা প্রকার মাদক। মাদকের জালে জড়াচ্ছে উঠতি বয়সের যুব সমাজ। প্রশাসনের চোখ ফাঁকি দিয়ে চালাচ্ছে রমরমা মাদক ব্যবসা। এমন দৃশ্য একদিনের নয়, নিত্যদিনের। অভিযোগ, সিরাজগন্জের বেলকুচি উপজেলার প্রত্যন্ত অঞ্চল এলাকা হওয়ার সুবাদে অনেকেই এ কারবারে জড়িত। বড়দের পাশাপাশি মাদকের আগ্রাসনে গ্রাস করেছে উঠতি বয়সের যুবকদের। এছাড়াও বেলকুচি থানা থেকে ধুকুরিয়াবেড়া ইউনিয়নের লহ্মীপুর, পিরার চর লহ্মীপুর দুরুত্ব বেশি এবং উল্লাপাড়া ও শাহজাদপুর থানা বর্ডার এলাকা হওয়ায় মাদকের ছোট বড় চালান এদিক দিয়েই সরবরাহ হয়ে থাকে। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক স্থানীরা জানান, এই এলাকায় এখন অনেকেই মাদক ব্যবসার সাথে জড়িত। স্থানীয়রা ইঙ্গিত দিয়ে কিছু মাদক ব্যবসার সাথে জড়িত ব্যক্তীদের নাম প্রকাশ করেন, এদের মধ্যে ধুকুরিয়াবেড়া ইউনিয়নে লহ্মীপুর গ্রামের আব্দুল কুদ্দুসের ছেলে সোহেল রানা, ফজর আলীর ছেলে নজরুল ইসলাম, জসিম সরকারের ছেলে আব্দুল হামিদ, নেফাজ আকন্দের ছেলে ছাইদুল ইসলাম, বহুদ আলীর ছেলে জেহাদুল ইসলাম সহ আরও অনেকেই এখন মাদক ব্যবসার সাথে জড়িত। আবার কেউ কেউ বলছেন, স্থানীয় কিছু প্রভাবশালী ব্যক্তির ছত্রছায়ায় এরা মাদক ব্যবসা চালাচ্ছেন। এদের মধ্যে সোহেল রানার বাড়িতে ইতিপূর্বে সিভিলে প্রশাসন গেলে তাদেরকে হ্যাস্তন্যস্ত করলে স্থানীয় প্রশাসন এসে তাকে আটক করে বলে এমনও অভিযোগ রয়েছে তার বিরুদ্ধে। এদিকে আর একটি সূত্রে জানাযায়, বেলকুচি উপজেলার দৌলতপুর ইউনিয়নের আংশিক আজুগড়া চর ও জামাত মোর এলাকার জামাত আলীর ছেলে সমেশ আলী, মোন্নাফের ছেলে আমির হামজা, শাহজাহানের ছেলে ইউসুফ আলী, সন্তোষ মোল্লার ছেলে আবু কালাম, শহিদ ব্যাপারীর ছেলে সাইদুল ইসলাম, দীর্ঘদিন ধরে মাদক ব্যবসা চালাচ্ছে। এলাকাবাসী জেনেও ভয়ে তাদের বিরুদ্ধে কেউ মুখ খুলতে সাহস পায়না। এসমস্ত মাদক ব্যবসায়ীদের তেমন দৃশ্যমান আয়ের উৎস না থাকলেও এরা রাতারাতি মাদক ব্যবসা করে জায়গা, জমি, ভবন রাতারাতি আঙুল ফুলে কলা গাছ হয়েছেন। প্রত্যন্ত এলাকায় ও নিরাপদ স্থান হওয়ায় নির্বিঘ্নে ইয়াবা, গাঁজা ও হেরোইনসহ বিভিন্ন ধরণের মাদক ব্যবসা চালাচ্ছেন। বিভিন্ন সচেতন মহলের মাধ্যমে জানাযায়, এখানে বেশ কিছু মেয়ে মানুষ দিয়েও জমজমাট মাদক ব্যবসা করা হয়। নাম প্রকাশ্যে অনিচ্ছুক ভুক্তভোগী একজন সচেতন ব্যক্তি ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, এসব মাদক ব্যবসায়ীদের মাদক কারবার চলে, এমন খবর স্থানীয় প্রশাসনের কিছু লোক জানা সত্বেও তাদের বিরুদ্ধে কেন ব্যবস্থা নেয় না তা বোধগম্য নয়। এসব মাদক ব্যবসায়ীদের বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহনসহ সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের দ্রুত হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন। মাদক ব্যবসা বন্ধে কোন ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে কি না এ বিষয়ে জানতে চাইলে, বেলকুচি থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) তাজমিলুর রহমান প্রতিবেদকে বলেন, মাদকের বিরুদ্ধে আমাদের অভিযান অব্যাহত রয়েছে। কোন মাদক ব্যবসায়ী ধরা পড়লে কোন প্রকার ছাড় দেয়া হবে না। মাদক ব্যবসায়ী যেই হোক না কেন, মাদক ব্যবসায়ীদের বিরুদ্ধে কঠোর আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরও খবর

ফেসবুকে আমরা

© স্বত্ব সংরক্ষিত © ২০২১ খোলা নিউজ বিডি ২৪
Themes Customize By Shakil IT Park