1. admin@kholanewsbd24.com : admin :
সোমবার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২২, ০৭:৩০ অপরাহ্ন
সোমবার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২২, ০৭:৩০ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
টঙ্গীতে ন্যায় বিচার চেয়ে সংবাদ সম্মেলন কোভিড ১৯ ১ম, ২য় ও বুস্টার ডোজ টিকা প্রদানে মসিকের বিশেষ ক্যাম্পেইন ইয়ারপুর ইউপি উপ-নির্বাচনে নৌকার মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত বিরামপুরে মহান বিজয় দিবস উপলক্ষে প্রস্তুতিমূলক সভা অনুষ্ঠিত সিলেট রিপোর্টার্স ক্লাব নেতৃবৃন্দের সাথে বিএমএসএস চেয়ারম্যানের সৌজন্য সাক্ষাৎ শায়েস্তাগঞ্জ থানার নবনির্মিত ভবনের শুভ উদ্বোধন করছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ঠাকুরগাঁওয়ে বিশ্ব মৃত্তিকা দিবস উপলক্ষে র‌্যালি ও আলোচনা সভা ঠাকুরগাঁওয়ে দেশীয় চিকিৎসক সমিতির ত্রি-বার্ষিক জেলা সম্মেলন শাহজাদপুরে মহান বিজয় দিবস উদযাপন উপলক্ষে প্রস্তুতিমুলক সভা মহানগরের নেতা-কর্মীদের নিয়ে ঐক্যবদ্ধভাবে এগিয়ে যাওয়ার অঙ্গীকার মেয়র টিটু মহোদয়

ঠাকুরগাঁওয়ে ঢোলাহাট ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও হিসাব সহকারী ২ জনে মিলে আয়াকে জোরপূর্বক ধর্ষণের অভিযোগে মামলা ।

প্রশাসন
  • সময় : শনিবার, ১ অক্টোবর, ২০২২
  • ২১৪ বার পঠিত

মোঃ মজিবর রহমান শেখ,,
ঠাকুরগাঁও জেলার সদর উপজেলার রুহিয়া থানার ঢোলারহাট ইউনিয়নের চেয়ারম্যান অখিল চন্দ্র রায় (৫৫) ও হিসাব সহকারি ইব্রাহিম আলী(২৬)’র বিরুদ্ধে আয়াকে জোরপূর্বক ধর্ষণের অভিযোগে থানায় মামলা দায়ের। রুহিয়া থানায় শুক্রবার ৩০ সেপ্টেম্বর মামলাটি করেন আয়া উরু বেগম । যাহার মামলা নং-১০। মামলার এজাহারে বলা হয়েছে, অখিল চন্দ্র রায় ও হিসাব সহকারি ইব্রাহিম আলি নারী নির্যাতনকারী নারীলোভী ও ধর্ষণকারী ব্যক্তি। আমাকে ঢোলারহাট ইউপিতে ঝাড়ুদার হিসেবে কাজ দেয়, এবং সরকারী বিভিন্ন সুযোগ-সুবিধার প্রলোভন দেখিয়ে গত ২৭ সেপ্টেম্বর মঙ্গলবার বিকেল ৩ টায় আমাকে চেয়ারম্যান কক্ষে ডেকে নিয়ে বাথরুম পরিষ্কার করতে বলে।
আমি অখিল চন্দ্র রায়ের কথামতো বাথরুম পরিষ্কার করতে গেলে সুযোগ বুঝে বাথরুমে প্রবেশ করে দরজা লাগিয়ে আমার ইচ্ছের বিরুদ্ধে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে চলে যায়। পরবর্তীতে আমি কান্নাকাটি করিতে থাকিলে হিসাব সহকারী ইব্রাহিম আলী দৌড়ে আসে এবং তার কক্ষে ডেকে নিয়ে জানতে চাইলে আমি বিষয়টি খুলে বলি। সেই সুযোগে আমার সরলতার সুযোগ বুঝে সেও আমার বুকে হাত দেয় এবং তার রুমে জোরপূর্বক ধর্ষণ করার চেষ্টা করে। আমি কোন রকম ইব্রাহীমের নিকট হতে ছুটে রুম থেকে বেরিয়ে যায় , এবং চিৎকার করে কান্নাকাটি করতে করতে আমার স্বামীর বাড়িতে গিয়ে ঘটনার বিষয়ে আমার স্বামী ও আমার পরিবারের লোকজনকে জানাই। পরবর্তীতে ঘটনার দিন রাতে আসামিদ্বয় আমার বাড়িতে এসে তাদের ভুল স্বীকার করে আমাদের কাছে ক্ষমা চেয়ে চিকিৎসার জন্য ২০০০ টাকা বিছানার উপর ফেলে চলে যায়।
উক্ত বিষয় নিয়ে আপস-মীমাংসার কথা বলে পরবর্তীতে স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিদের সহযোগিতায় আপস-মীমাংসা না হলে এজাহার দায়ের করিতে সামান্য বিলম্ব হইল। এদিকে অভিযুক্ত অখিল চন্দ্র রায়ের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, আমাকে ও আমার হিসাব সহকারীকে সামাজিকভাবে হেয় করতেই প্রতিপক্ষরা এই ধর্ষণের নাটক সাজিয়েছে বলে দাবি অভিযুক্ত চেয়ারম্যানের। আমাকে ঘায়েল করতে প্রতিপক্ষের লোকজন ধর্ষণের নাটক সাজিয়েছে। আমি কোনোভাবেই জড়িত ছিলাম না, আর আমাকে সমাজে হেয় করার জন্য এ সব করা হচ্ছে। ব্যবস্থা গ্রহন করবেন কিনা জানতে চাইলে তিনি বলেন, আমার উপদেষ্টাদের পরামর্শে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে। অফিসার ইনচার্জ সোহেল রানা বলেন, পুলিশ হেফাজতে ঐ মহিলাকে ডাক্তারি পরীক্ষা করার জন্য সদর হাসপাতালে প্রেয়ন করা হয়েছে। তদন্ত সাপেক্ষে প্রয়োজনীয় ব্যাবস্থা গ্রহন করা হবে।

মোঃ মজিবর রহমান শেখ
০১৭১৭৫৯০৪৪৪

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরও খবর

ফেসবুকে আমরা

© স্বত্ব সংরক্ষিত © ২০২১ খোলা নিউজ বিডি ২৪
Themes Customize By Shakil IT Park