1. admin@kholanewsbd24.com : admin :
রবিবার, ১৪ অগাস্ট ২০২২, ০৩:১০ অপরাহ্ন
রবিবার, ১৪ অগাস্ট ২০২২, ০৩:১০ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
নাটোরে ছাত্র কে বিয়ে করা সেই শিক্ষিকার মৃত্যুর কারন কি ত্রিপুরা সেবা দলের পক্ষ থেকে ভারত গৌরব যাত্রা শুরু আগরওয়ালাতে ঝালকাঠিতে পুরে যাওয়া অভিযান ১০ লঞ্চ আদালতের নির্দেশে মালিককে বুঝিয়ে দিল পুলিশ মাদক ব্যাবসায়ে বাধা, যুবককে হত্যাচেষ্টা সোনারগাঁয়ে বীর মুক্তিযোদ্ধার জমি দখলের অভিযোগ সপ্তাহব্যাপী জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে নিজ নির্বাচনী এলাকায় (ঝালকাঠি-১) এসেছেন সংসদ সদস্য এমপি হারুন বিরামপুরে ট্রেনের ধাক্কায় নবম শ্রেণী পড়ুয়া শিক্ষার্থীর মৃত্যু লালমনিরহাটে সাপ্তাহিক আলো মনি পত্রিকার নবম বর্ষপূর্তি অনুষ্ঠিত সন্ত্রাসী হামলার প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন কাশিমপুরে তিন মাস পরে অপহরণকারী আল-আমীন আটক

মোহনপুরে ছোট ভাইকে না পেয়ে বড় ভাইয়ের বাড়িতে হামলা

প্রশাসন
  • সময় : শনিবার, ৩০ জুলাই, ২০২২
  • ৫৩ বার পঠিত

এম এম মামুন, নিউজ ডেস্ক : রাজশাহীর মোহনপুরে মারপিট মামলার আসামিসহ পরিবারের সদস্যদের বাড়িতে উঠতে দেয়নি ওই মামলার বাদিসহ তার লোকজন। তিনি আদালত থেকে জামিন হয়ে বাদির হুমকির মুখে পরিবার নিয়ে পালিয়ে বেড়াচ্ছেন। শুক্রবার রাতে জুলকারনাইন পরিবার নিয়ে আসার খবর শুনে বাদিসহ লোকজন জুলকারনাইনের বড় ভাইয়ের বাড়িতে ঢুকে জিনিসপত্র ব্যাপক ভাংচুর করে নারীকে শ্লীলতাহানি করার অভিযোগ উঠেছে।
এ বিষয়ের ভুক্তভোগী আমিনুল ইসলাম বাদি হয়ে বাড়ি ভাংচুর ও নারীকে শ্লীলতাহানির অভিযোগ এনে মোহনপুর থানার অভিযোগ দায়ের করেছেন।
অভিযোগ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, মোহনপুর উপজেলার নোনাভিটা গ্রামের মৃত মোজাম্মেল হোসেনের ছোট ছেলে (মানুষিক ভারসাম্যহীন) জুলকারনাইন এর সাথে প্রতিবেশী আবু তালেবের ছেলে জাহিদ হাসানের ৬ মাস আগে মারপিটের ঘটনায় থানায় মামলা হয়। এ মামলার জুলকারনাইন ১ মাস কারাবাসের পর জামিনে মুক্ত হন। বর্তমানে মামলা আদালতে বিচারাধীন রয়েছে। এঘটনার পর থেকে দীর্ঘ ৫ মাস জুলকারনাইন ও তার পরিবারকে নিজের বসতবাড়ীতে উঠতে দেয়নি। এমনকি গ্রামেও ঢুকতে দেয়নি মামলার বাদি আবু তালেব ও তার ছেলে জাহিদ হাসান। জুলকারনাইন ও তার পরিবার বর্তমানে ফতেপুর বড় বোনের বাসায় মানবেতর জীবনযাপন করছেন। জুলকারনাইনের ৭ বছরের মেয়ের স্কুলে লেখাপড়াও বন্ধ করে দিয়েছে তারা। এছাড়াও জুলকারনাইনকে জামিন করায় তার বড় বোন ও বড় ভাইদের উপর অমানুষিক নির্যাতনের অভিযোগ পাওয়া গেছে।
জুলকারনাইন এর বড় ভাই আমিনুল ইসলাম বলেন, গতকাল শুক্রবার আমাদের বাড়িতে ঈদ পরবর্তী পারিবারিক অনুষ্ঠান ছিলো। অনুষ্ঠানে আমরা চার ভাইয়ের মধ্যে জুলকারনাইন ছাড়া অন্য ৩ ভাই ও চার বোনের পরিবার উপস্থিত ছিলেন। হটাৎ রাত ১০ টার দিকে জুলকারনাইনকে খুজতে প্রতিবেশী জাহিদ হাসান, কার্জন, জানারুল, জালাল,শফিকুল, জুয়েলসহ ২০/২৫ জন আমাদের বাড়িতে হামলা ও ভাংচুর চালায়। একপর্যায়ে বাড়ির ভেতর ঢুকে পড়ে মহিলাদের শ্লীলতাহানির চেষ্টা করে। তারা বলে জুলকারনাইন কই তাকে বের করে দে। অথচ তাদের ভয়ে জুলকারনাইন দীর্ঘ ৫ মাস গ্রামে ঢুকতেই পারেনা। পরিবার নিয়ে বোনের বাসায় থাকে।
জুলকারনাইন ও জাহিদ হাসানের প্রতিবেশী নাহিদ হাসান জানান, আমরা অনেকেই জাহিদের পরিবারকে নিষেধ করেছি কিন্তু তারা কিছুই শুনেনা। গতকাল রাতের হামলার ঘটনা তিনি নিজে চোখে দেখেছে। আরেক প্রতিবেশী আব্দুল ক্বারি বলেন, পুর্বের জেরে তারা এই হামলা করেছে। তারা ২০/২৫ জন মিলে এই হামলা করেছে।
জুলকারনাইনের বড় বোন কোটালীপাড়া মাদ্রাসার শিক্ষিকা হাসিনা বেগম বলেন, মামলার পর থাকেই আমার ভাই মানুষিক ভারসাম্যহীন জুলকারনাইন ও তার পরিবারকে বাসায় উঠতে দেয়নি জাহিদ বাহিনি। তারা প্রতিনিয়ত আমাদের হুমকি-ধমকি দিয়ে যাচ্ছে। গতকাল তারা বড় ভাইয়ের ভাসাতে অতর্কিত হামলা চালায় ভাংচুর করে। তাদের অমানুষিক নির্যাতনের কারনে আমার ভাই বাড়ি ছাড়া। আমার বাড়িতে মানবেতর জীবনযাপন করছে। আমরা এর সুষ্ঠু সমাধান চাই।
এবিষয়ে মোহনপুর থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) কবির হোসেন বলেন, অভিযোগ পেয়েছি। জুলকারনাইন ও তার পরিবার যেন বাসায় উঠতে পারে সেই ব্যাবস্থা নেওয়া হবে। এছাড়াও শুক্রবার রাতের তদন্ত করে আইন গত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ জাতীয় আরও খবর

ফেসবুকে আমরা

© স্বত্ব সংরক্ষিত © ২০২১ খোলা নিউজ বিডি ২৪
Themes Customize By Theme Park BD