1. admin@kholanewsbd24.com : admin :
রবিবার, ১৭ অক্টোবর ২০২১, ০৭:২১ অপরাহ্ন
রবিবার, ১৭ অক্টোবর ২০২১, ০৭:২১ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন হল পবিপ্রবির GST গুচ্ছভুক্ত ‘এ’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষা ৷ যুবলীগ নেতা রইচ-উদ্দিন (বাচ্চুকে) তালন্দ ইউপি সতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী ঘোষণা করে মনোনয়ন পত্র জমা দিলেন তৃণমূল নেতাকর্মীরা! সাভার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কাছে সাংবাদিক সুরক্ষা আইন বাস্তবায়নের স্মারক লিপি প্রদান সাংবাদিক সুরক্ষা আইন প্রনয়নের দাবীতে দেশব্যাপী প্রধানমন্ত্রীর নিকট স্মারকলিপি প্রদান মোহনপুরে মৌগাছি বাজারে মর্মান্তিক সড়ক দুর্ঘটনায় আব্বাস আলী নিহত! তানোরে আ’লীগ সহ-সভাপতি খাদেমুন নবী চৌধূরী (বাবু) সতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন পত্র জমা দিয়েছেন। বিতর্কিতদের নাম কেন্দ্রে পাঠানো নিয়ে কঠোর হুঁশিয়ারিবিতর্কিতদের নাম কেন্দ্রে পাঠানো নিয়ে কঠোর হুঁশিয়ারি! সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের ৷ টঙ্গীতে প্রতারনা মামলার সাজাপ্রাপ্ত আসামি গ্রেফতার। গাজীপুরে দাঁড়িয়ে থাকা ট্রাকে মোটরসাইকেলের ধাক্কা নিহত ২ যুবলীগ নেতা রইচ-উদ্দিন (বাচ্চুকে) তালন্দ ইউপি সতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী ঘোষণা করেছে তৃণমূল নেতাকর্মীরা!

” ধর্ষণ ” অতি পরিচিত একটি নিকৃষ্ট শব্দ ।

প্রশাসন
  • সময় : সোমবার, ১১ অক্টোবর, ২০২১
  • ২৫ বার পঠিত

ডালিয়া আল মীম
দিনের পর দিন এই বিষয়টি আরো ভয়াবহ রূপ ধারণ করছে । বাংলাদেশে বাড়ছে ধর্ষণ , বাড়ছে ধর্ষনের পর হত্যা । একই সঙ্গে বাড়ছে নিষ্ঠুরতা ।
আর এই নিকৃষ্টতম কাজের সাথে জড়িতদের আইনের আওতায় এনে সঠিক বিচার করা যাচ্ছে না বললেই চলে । কারন এর সাথে জড়িতদের অনেকেরই আছে ক্ষমতার জোর, তাই তারা থেকে যায় ধরা ছোঁয়ার বাইরে এবং অপ্রতিরোধ্য ।

ধর্ষণ একধরনের যৌন আক্রমণ ।
ধর্ষণের সর্বোচ্চ শাস্তি মৃত্যুদণ্ড করা হয়েছে। ধর্ষণ প্রতিরোধে এটি অবশ্যই প্রতিরোধক হিসেবে কাজ করবে । কিন্তু শাস্তির বিধান আর তার বাস্তবায়ন এক বিষয় নয় । ঘটনার শুরু থেকে বিচার পর্যন্ত পুরো প্রক্রিয়ায় উভয় পক্ষ জড়িত। সব পক্ষ ও পর্যায়ের সুসামঞ্জস্যপূর্ণ নিয়ম-নীতি মেনে একটি নির্দিষ্ট উদ্যোগের ওপর ভিত্তি করে শাস্তি নিশ্চিত হতে পারে। পুলিশের প্রধান দায়িত্ব হলো অভিযোগের তদন্ত করা। পারিবারিক ও সামাজিক মর্যাদা, সংসার রক্ষা, ভবিষ্যতের বিভিন্ন ঝামেলা ইত্যাদি নানা বাস্তবতার কথা চিন্তা করে কোন কোন ক্ষেত্রে ভুক্তভোগীর পরিবার বিষয়টি প্রকাশ করতে চায় না ।
ধর্ষণের অভিযোগ বিচার ও শাস্তি প্রদান বিভিন্ন শাসন ব্যবস্থায় বিভিন্ন রকম হয়ে থাকে।

ধর্ষণের ক্ষেত্রে লক্ষ্য করা যায় , অপরিচিত ব্যক্তিদের দ্বারা ধর্ষণের ঘটনার চেয়ে পরিচিত ব্যক্তিদের দ্বারা ধর্ষণের ঘটনা তুলনামূলক ভাবে সংখ্যায় অনেক বেশি। কারাগারে , পুরুষ কর্তৃক পুরুষ ও নারী কর্তৃক নারী ধর্ষণের ঘটনাও সাধারণ, কিন্তু এধরনের ধর্ষণ সম্ভবত সবচেয়ে কম আলোচিত ধর্ষণগুলোর অন্তর্ভুক্ত।
গৃহযুদ্ধ ছাড়াই আন্তর্জাতিক যুদ্ধের ক্ষেত্রেও এই ধর্ষণের প্রকোপ লক্ষণীয় ছিল ।
সাধারণত , ধর্ষণের শিকার ব্যক্তির ধর্ষকের দ্বারা এবং কোনো কোনো সময় সমাজে ভুক্তভোগীর নিজ পরিবার ও আত্মীয়-স্বজনদের দ্বারা সহিংসতার শিকার হয়ে থাকে । ধর্ষণের শিকার ব্যক্তিরা মানসিকভাবে আঘাতপ্রাপ্ত হয়ে থাকে এবং আঘাত-পরবর্তী আক্রান্ত হতে পারে । মানসিক চাপ থেকে বাঁচতে কখনও কখনও ভুক্তভোগী আত্মহত্যার পথ বেছে নেয়। এই মানসিক চাপ থেকে ভুক্তভোগীকে বের হয়ে আসতে সাহায্য করে থাকে সমাজকর্মীরা । তবে আমাদের দেশে এ বিষয়টির ওপর খুব বেশি জোর দেয়া হয় না ।
আমাদের দেশে আইন ব্যবস্থা দুর্বল হওয়ার কারণে দিন দিন এ জঘন্য অপকর্মটি বেড়েই চলেছে এবং ধর্ষণের পর হত্যা হয়ে উঠেছে একটি নিত্যদিনের সাধারণ বিষয়। তবে আমাদের প্রত্যেকটি নাগরিকের উচিত এ ব্যাপারে সচেতন হওয়া এবং অপরাধীকে আইনের আওতায় এনে সঠিক বিচার করা উচিত।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরও খবর

ফেসবুকে আমরা

© স্বত্ব সংরক্ষিত © ২০২১ খোলা নিউজ বিডি ২৪
Themes Customize By Theme Park BD