1. admin@kholanewsbd24.com : admin :
প্রথম শ্রেণীর ছাএীকে ধর্ষণ দেড় লাখ টাকায় রফাদফা - খোলা নিউজ বিডি ২৪    
বৃহস্পতিবার, ২২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৮:২৩ পূর্বাহ্ন
বৃহস্পতিবার, ২২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৮:২৩ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
শিবচরে দয়াল বাবা হালিম ফকির(রহ্) এবং মজিদ ফকির এর বাৎসরিক উরসে ভক্তদের ঢল বেলকুচিতে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ও শহীদ দিবস উদযাপন নড়াইলে কুড়ির ডোপ মাঠে সূর্যাস্তের সঙ্গে সঙ্গে লাখো প্রদীপ জ্বালিয়ে ভাষা শহীদদের স্মরণ পাঁচবিবিতে চাঞ্চল্যকর আবু হাসান হত্যা মামলার পলাতক আসামী আমিনা বেগম গ্রেফতার পাঁচবিবিতে ধর্ষণ মামলার পলাতক আসামী গ্রেফতার পাঁচবিবিতে যথাযোগ্য মর্যদায় শহিদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত ধামইরহাটে যথাযোগ্য মর্যাদায় মহান শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত পাঁচবিবির বুড়াবুড়ির মাজারে ২৫ তম বাৎসরিক ওয়াজ মাহফিলের প্রস্তুতি সভা নড়াইল পুলিশ লাইনস্ স্কুলে শহিদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উদযাপন পাঁচবিবিতে ঘরবাড়ি ছাড়া ১৭বছর যাবত রেল স্টেশনে থাকেন- আবুল কালাম

প্রথম শ্রেণীর ছাএীকে ধর্ষণ দেড় লাখ টাকায় রফাদফা

প্রশাসন
  • সময় : শনিবার, ১৮ ডিসেম্বর, ২০২১
  • ৫৮১ বার পঠিত

প্রতিনিধি,সখীপুর(টাঙ্গাইল):

টাঙ্গাইলের সখীপুরে ৭ বছরের শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগ ওঠেছে মোর্শেদ (২০)
নামে এক বখাটের বিরুদ্ধে। ধর্ষকের পরিবার স্থানীয়ভাবে প্রভাবশালী হওয়ায়
ধর্ষিতার পরিবারকে বিভিন্ন ভাবে ভয় দেখিয়ে ১লক্ষ ৫০ হাজার টাকার ডিপোজিট
করার বিনিময়ে সমাধান হতে বাধ্য করেছে বলে জানা যায়। গত ২ ডিসেম্বর
উপজেলার কাকড়াজান ইউনিয়নের মহানন্দপুর এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। অভিযুক্ত ওই
যুবক ইউনিয়ন আ.লীগের সাবেক আহ্বায়ক ও বীরমুক্তিযোদ্ধা গোলাম মোস্তফার
ছেলে। ধর্ষক পুলিশের ভয়ে আত্ম গোপনে রয়েছে ।
এলাকাবাসী জানান, ২ডিসেম্বর (বুধবার) সন্ধ্যায় বখাটে মোর্শেদ(২০)
মহানন্দপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রথম শ্রেনীতে পড়ুয়া শিশুটিকে
বাড়িতে ডেকে নিয়ে জোরপূর্বক ধর্ষন করে। ধর্ষনের শিকার গুরতর আহত অবস্থায়
শিশুর স্বজনরা তাকে উদ্ধার করে প্রথমে সখীপুর উপজেলা স্বাস্থ্য
কমপ্লেক্সের জরুরী বিভাগে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে টাঙ্গাইল
জেনারেল হাসপাতালে রেফার্ড করে। পরে টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালে গাইনী
ডাঃ নিছফুন নাহার এর তত্ত্বাবধানে চিকিৎসা নেয়। এ দিকে ধর্ষক মোর্শেদ
পলাতক রয়েছে। কয়েকদফা বৈঠক করে ধর্ষকের বাবা বীর মুক্তিযোদ্ধা গোলাম
মোস্তফা, মাওলানা বায়েজিদ,বড়চওনা-কুতুবপুর কলেজের প্রভাষক আলা-আমিন,মনসুর
আলী সহ আরো কয়েকজন মিলে শিশু ধর্ষিতার পিতা আবুল কাশেমকে জমি ও ১৮ হাজার
টাকা নগদ দিয়ে বাকী ১ লক্ষ ৩২ হাজার টাকা ডিপোজিট করে দিবে এ শর্তে
ধর্ষনের বিষয়টি ধামাচাপা দেয়। এমনকি মামলা করলে বা কাউকে জানালে হত্যার
হুমকি দিয়েছে বলে জানান ধর্ষিতার মা রহিমা বেগম।
ধর্ষককের চাচা বড়চওনা-কুতুবপুর কলেজের প্রভাষক আল-আমিন বলেন, ঘটনা সত্য এ
বিষয়ে ১৮ হাজার টাকা নগদ দিয়ে বাকী টাকার ডিপোজিট করে দেওয়া হবে।
ধর্ষিতার বাবা বলেন, আমি গরীব মানুষ এখানেই আমি দূর্বল। আমার মেয়ের যে
সর্বনাশ করেছে তার বাবা এ সমাজের প্রভাবশালী লোক স্থানীয়লোক যে ভাবে বলছে
সে ভাবেই মেনে নিতে হয়েছে। আল্লাহ সঠিক বিচার একদিন করবেই।
মহানন্দপুর বিজয়স্মৃতি উচ্চ বিদ্যালয় সাবেক প্রধান শিক্ষক
বীরমুক্তিযোদ্ধা শামছুল হক বলেন, ঘটনাটি অতি নেক্কারজনক। ধর্ষনের
অভিযুক্ত মোর্শেদের বাবা বীরমুক্তিযোদ্ধা গোলাম মোস্তফা আমার কাছে
আসছিল। সামাজিক ভাবে কয়েকদফায় বসে বিয়ষটি মীমাংসা করার চেষ্টা চলছে।
মেয়ে বাবা অতি দরিদ্র হওয়ায় ছেলে পক্ষ মেয়ে পক্ষকে ১ লক্ষ ৫০ হাজার টাকার
ডিপোজিট করে দিবে।
তিনি আরোও বলেন, ছেলের পক্ষ কিছু দিন সময় নিয়েছেন। মেয়ের বাবার কিছু জমি
বেদখল করে আবাদ করে আসছিল ওই ধর্ষকের বাবা। সে বিষয়েও কোন হস্তক্ষেপ করবে
না এমন শর্তে সমাধান হয়।
কাকড়াজান ইউনিয়নের নব নির্বাচিত চেয়ারম্যান দুলাল হোসেন মোবাইল ফোনে
বলেন, এ ঘটনার সমাধান হয়েছে কিন্তু কোন শর্তে সমাধান হয়েছে জানি না।
সখীপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(ওসি) এ কে সাইদুল হক ভূইয়া বলেন, এ
ঘটনার এখন পর্যন্ত কোনো লিখিত অভিযোগ পাওয়া যায়নি। অভিযোগ পেলে আইনগত
ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Please Share This Post in Your Social Media

এ জাতীয় আরও খবর

ফেসবুকে আমরা